ঢাকা, বাংলাদেশ || মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ || ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
শিরোনাম: ■ অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির ঘোষণা ট্রাক-কাভার্ডভ্যান চালকদের ■ দাম কমতে শুরু করেছে পেঁয়াজের ■ বিদিশাকে নিয়ে প্রেসিডেন্ট পার্কে থাকতে এরিকের জিডি ■ রাঙ্গামাটিতে জেএসএস’র দু’গ্রুপের গোলাগুলি, নিহত ৩ ■ কুষ্টিয়ায় মা-ছেলেকে শ্বাসরোধে হত্যা ■ লিফট ছিঁড়ে নিচে আমীর খসরুসহ ১২ বিএনপি নেতা ■ প্রথম দিনেই সংসদে তোপের মুখে বিজেপি (ভিডিও) ■ উপজেলা পর্যায় পর্যন্ত শুদ্ধি অভিযান চলতে থাকবে ■ যশোরে ১৮ রুটে বাস চলাচল বন্ধ, ভোগান্তিতে যাত্রীরা ■ সাবেক ছাত্রলীগ নেতাদের সম্পদ অনুসন্ধান শুরু ■ জব্দই থাকছে মোরশেদ খান ও তার ছেলের ব্যাংক হিসাব ■ সড়ক আইন প্রয়োগে বাড়াবাড়ি না করার নির্দেশ
এবার রাস্তায় নামলেন বিনিয়োগকারীরা
দেশসংবাদ ডেস্ক :
Published : Monday, 8 April, 2019 at 6:24 PM, Update: 08.04.2019 11:12:08 PM

এবার রাস্তায় নামলেন বিনিয়োগকারীরা

এবার রাস্তায় নামলেন বিনিয়োগকারীরা

দরপতন অব্যাহত রয়েছে দেশের শেয়ারবাজারে। আগের কার্যদিবসের ধারাবাহিকতায় সোমবারও প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সবকটি মূল্য সূচকের বড় পতন হয়েছে। দরপতনের প্রতিবাদে মতিঝিলের রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করেছেন সাধারণ বিনিয়োগকারীরা।

মূল্য সূচকের বড় পতনের পাশাপাশি ব্যাংক, বীমা, আর্থিক প্রতিষ্ঠানসহ সব খাতের বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম কমছে। ফলে ডিএসইতে পতনের খাতায় নাম লিখিয়েছে ২৭৩টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট। বিপরীতে দাম বেড়েছে মাত্র ৪৫টির। ২৮টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

এদিন লেনদেনের শুরু থেকেই সূচকের নিম্নমুখী প্রবণতা দেখা যায়। সময় গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে বাড়তে থাকে পতনের মাত্রা। একের পর এক প্রতিষ্ঠানের দরপতনের কারণে লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান মূল্য সূচক আগের কার্যদিবসের তুলনায় ৬১ পয়েন্ট কমে ৫ হাজার ৩৭২ পয়েন্টে নেমে যায়।

একের পর এক কোম্পানির দরপতনের কারণে পতনের হাত থেকে রক্ষা পায়নি ডিএসইর বাছাই করা ৩০টি কোম্পানিও। ফলে এই ৩০ কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই-৩০ সূচকটি আগের দিনের তুলনায় ১৮ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৯২৪ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। ডিএসই শরিয়াহ সূচক ১৮ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ২৪০ পয়েন্টে অবস্থান করছে।

এমন বড় দরপতনের কারণে দুপুরের দিকে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের একটি দল ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের সামনের রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করেন। দরপতনের জন্য বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এবং ডিএসইর কর্মকর্তাদের দায়ী করেন তারা।

বিক্ষোভ থেকে বিনিয়োগকারীরা অভিযোগ করে বলেন, কারসাজি চক্রের খপ্পড়ে পড়ে শেয়ারবাজারে টানা দরপতন হচ্ছে। এতে একটু একটু করে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের পুঁজি শেষ হয়ে যাচ্ছে। কিন্তু পতন ঠেকাতে বিএসইসি বা ডিএসই কেউ কোনো পদক্ষেপ নিচ্ছে না। সবাই যার বার সুবিধা আদায়ের চেষ্টা চালাচ্ছে।

এদিকে মূল্য সূচক ও বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের দাম কমার দিন ডিএসইতে লেনদেনের পরিমাণ কিছুটা বেড়েছে। দিনভর ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৪১৮ কোটি টাকা। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয় ৩৩০ কোটি ৫৪ লাখ টাকা। সে হিসাবে আগের কার্যদিবসের তুলনায় লেনদেন বেড়েছে ৮৭ কোটি ৪৬ লাখ টাকা।

টাকার অঙ্কে এদিন ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো বাংলাদেশের শেয়ার। কোম্পানিটির ৫৭ কোটি ৫৯ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর পরই রয়েছে গ্রামীণফোন। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ২২ কোটি ৬৬ লাখ টাকার। ১৭ কোটি ৩৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে এর পরই রয়েছে ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন।

লেনদেনে এরপর রয়েছে- ফরচুন সুজ, ইস্টার্ন ক্যাবলস, মুন্নু সিরামিক, স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যাল, ডেল্টা ব্র্যাক হাউজিং, ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংক এবং বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবলস।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের সার্বিক মূল্য সূচক সিএসসিএক্স ১১২ পয়েন্ট কমে ৯ হাজার ৯৭৮ পয়েন্টে অবস্থান করছে। বাজারটিতে লেনদেন হয়েছে ১৫ কোটি ২৪ লাখ টাকা। লেনদেন হওয়া ২৪১টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ৪২টির দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১৮০টির। দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ১৯টির।

দেশসংবাদ/এসআই


আরও সংবাদ   বিষয়:  বিনিয়োগকারী   চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জ  



মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এম. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. আবদুস সবুর মিঞা (অব.)
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft