ঢাকা, বাংলাদেশ || মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ || ২ আশ্বিন ১৪২৬
শিরোনাম: ■ সৌদি থেকে নিঃস্ব হয়ে ফিরলেন ১৭৫ কর্মী ■ উদ্বোধনের প্রথম দিনেই পদ্মাসেতুতে ট্রেন চলবে ■ তদন্তে দোষী প্রমাণ হলে জাবি ভিসির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা ■ অনিয়ম করে থাকলে জাবি ভিসির বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা ■ চারদিকে অনিশ্চয়তা, অস্থিতিশীলতা ■ প্রধানমন্ত্রী ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করবেন আজ ■ কাউকে ছাড় নয়, সবার আমলনামা আমার কাছে ■ মালয়েশিয়া থেকে ৮ হাজার বাংলাদেশিকে ফেরত ■ উত্তেজনার মধ্যেই আমিরাতের জাহাজ আটক করল ইরান ■ ছাত্রলীগকে ১ কোটি টাকা ঈদ সালামি দিয়েছেন ভিসি ■ ভারত মহাসাগরে চীনের ৭ যুদ্ধজাহাজ ■ ১০ হাজার স্থাপনায় অভিযান চালিয়ে ২৬ টিতে পওয়া গেছে এডিস মশা
বগুড়ায় মায়ের আটকের খবর পেয়ে ধর্ষকের আত্মসমর্পণ
জিএ মিজান, বগুড়া
Published : Thursday, 11 July, 2019 at 10:04 PM, Update: 11.07.2019 11:05:10 PM



বগুড়ার ধুনট উপজেলায় মাকে আটকের খবর পেয়ে ধর্ষণ মামলার এক আসামি আত্মসমর্পণ করেছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে ধুনট থানায় হাজির হলে তাকে গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতর নাম বকুল হোসেন মন্ডল। তিনি উপজেলার রঘুনাথপুর গ্রামের অফফের আলীর ছেলে।

বকুল হোসেনের ধর্ষণের শিকার হয়ে এক স্কুলছাত্রী পুত্রসন্তান প্রসব করেছে। ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইসমাইল হোসেন এ প্রতিবেদক-কে বলেন, ধর্ষণ মামলার আসামি বকুলকে গ্রেফতারের জন্য কৌশল হিসেবে তার মাকে আটক করা হয়েছিল। এ খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার বকুল হোসেন আত্মসমর্পণ করেছেন। পরে তাকে গ্রেফতার দেখিয়েকে আদালতের মাধ্যমে বগুড়া কারাগারে পাঠানো হয়েছে এবং তার মাকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ধর্ষণের শিকার মেয়েটি কৈয়াগাড়ি গ্রামে নানা রশিদ মন্ডলের বাড়ি থেকে স্থানীয় বিদ্যালয়ে সপ্তম শ্রেণিতে পড়ত। বিয়ের প্রলোভনে বকুল হোসেন স্কুলছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। গত ২০১৮ সালের ১৫ এপ্রিল বিকেলে বকুল মেয়েটির ঘরে ঢুকে ধর্ষণের সময় ধরে ফেলে নানা। ঘটনাটি প্রকাশ করার ভয় দেখিয়ে একই সময় নানা রশিদ মন্ডলও তার নাতনিকে ধর্ষণ করেন। ধর্ষণে মেয়েটি অন্তঃসত্ত্বা হলে মেয়ের বাবা বাদী হয়ে ২০১৮ সালের ৩ অক্টোবর বগুড়া নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা করেন। ওই মামলায় মেয়েটির নানা রশিদ মন্ডল ও প্রেমিক বকুল হোসেনকে আসামি করা হয়। এ অবস্থায় ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রী ১ জানুয়ারী বাবার বাড়ীতে পুত্রসন্তানের জন্ম দেয়।

এ দিকে সন্তান প্রসবের পর থেকে লোকলজ্জায় মেয়েটি ও তার পারিবারসহ গ্রাম ছেড়ে আত্মগোপনে রয়েছেন। ওই মামলার ২ নম্বর আসামি স্কুলছাত্রীর আপন নানা রশিদ মন্ডলকে গত ২৫ জানুয়ারি গ্রেফতার করে বগুড়া কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ। রশিদ মন্ডল উপজেলার যমুনা পাড়ের কৈয়াগাড়ি গ্রামের মুনছের আলীর ছেলে।

দেশসংবাদ/প্রতিনিধি/আলো

মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
সম্পাদক ও প্রকাশক
এফ. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. আবদুস সবুর মিঞা (অব.)
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft