ঢাকা, বাংলাদেশ || শুক্রবার, ২৩ আগস্ট ২০১৯ || ৮ ভাদ্র ১৪২৬
শিরোনাম: ■ রাজধানীতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২ ■ ফরাসি প্রেসিডেন্টের সামনের টেবিলে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী’র পা ■ ভারত-পাকিস্তান সীমান্তে ব্যাপক গোলাগুলি ■ কাশ্মীরে গণহত্যার সতর্কতা জারি, ১০ আলামত প্রকাশ ■ সাতক্ষীরায় গোলাগুলিতে শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী নিহত ■ সৌদি আরবে ড্রোন হামলা ■ টেকনাফে যুবলীগ নেতাকে গুলি করে হত্যা করলো রোহিঙ্গারা ■ সারেদেশে বজ্রপাতে নিহত ১২ ■ রাখাইনে প্রবেশ করতে চায় ইউএনএইচসিআর ■ এমপির পছন্দের ব্যক্তিই হবেন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সভাপতি ■ ডিসেম্বরের মধ্যে প্রাথমিকে আরো ২০ হাজার শিক্ষক নিয়োগ ■ রোহিঙ্গাদের ফেরত না যাওয়ার নেপথ্যে রয়েছে যার প্রভাব
ট্রাম্পকে ইমপিচ না করে আমি কোথাও যাচ্ছি না
দেশসংবাদ ডেস্ক
Published : Monday, 29 July, 2019 at 1:08 PM

আবারো যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে ইমপিচ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করলেন দেশটির ডেমোক্র্যাটিক দলীয় মুসলিম এমপি রাশিদা তালিব। ফিলিস্তিনি বংশোদ্ভূত রাশিদা বলেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে ইমপিচ না করে আমি কোথাও যাচ্ছি না। ট্রাম্পের সর্বশেষ বর্ণবাদী টুইটের প্রতিক্রিয়ায় তিনি এই মন্তব্য করেন।

মঙ্গলবার আবারো চার অভিবাসী নারী এমপিকে উদ্দেশ্য করে বর্ণবাদী টুইট করেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প । তিনি লিখেছেন, ‘আমি মনে করি না যে এই চার নারী এমপি আমাদের দেশকে ভালোবাসতে সক্ষম। তারা ডেমোক্র্যাটিক পার্টিকে ধ্বংস করছে’।
 
এর কয়েকদিন আগে ট্রাম্প বলেছিলেন, এই চার অভিবাসী এমপি যেসব দেশ থেকে এসেছে সেসব দেশ দুর্নীতি গ্রস্থ। তাদের যুক্তরাষ্ট্র ভালো না লাগলে দেশে ফিরে যাক। ট্রাম্পের মুসলিম ও অভিবাসী বিদ্বেষী বক্তব্য ও নীতির সমালোচনা করায় তিনি এই কথা বলেন।

এবারের মধ্যবর্তী নির্বাচনে চার অভিবাসী নারী এমপি নির্বাচিত হয়ে মার্কিন পার্লামেন্টের উচ্চকক্ষ সিনেটে যোগ দিয়েছেন। তাদের মধ্যে দুজন মুসলিম। একজন ফিলিস্তিনি বংশোদ্ভূত রাশিদা তালিব, অন্যজন সোমালী উদ্বাস্তু পরিবারের সন্তান ইলহান ওমর। এই দুজন নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই ট্রাম্পের বিতর্কীত নীতির বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন।

ট্রাম্পের সর্বশেষ টুইটের জবাবে সোচ্চার হয়েছেন রাশিদা তালিব। একটি সম্মেলনে বক্তৃতা করতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘এই প্রেসিডেন্টকে ইমপিচ না করে আমি কোথাও যাচ্ছি না’।
 
প্রসঙ্গত যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট কোন বিতর্কীত কাজ করলে পার্লামেন্টে এমপিরা তার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে তাকে ইমপিচ(অভিশংসন) করে ক্ষমতা থেকে সরাতে পারেন। তবে এজন্য পার্লামেন্টে উভয় কক্ষে বিষয়টি ভোটে পাস হতে হবে। ইতোমধ্যেই ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ইমপিচ প্রস্তাব কয়েকবার উঠেছে মার্কিন পার্লামেন্টে। যদিও তা এমপিদের ভোটে পাস হয়নি।

দেশসংবাদ/এনকে

মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
সম্পাদক ও প্রকাশক
এফ. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. আবদুস সবুর মিঞা (অব.)
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft