ঢাকা, বাংলাদেশ || সোমবার, ১৯ আগস্ট ২০১৯ || ৪ ভাদ্র ১৪২৬
শিরোনাম: ■ অবশেষে জিব্রাল্টার ছাড়ল সেই ইরানি ট্যাংকার ■ ২০২৩ সালের মধ্যে সব স্কুলে দুপুরের খাবার ■ সেনা সদস্যকে গুলি করে হত্যা ■ ডেঙ্গু দমন নিয়ে অসন্তোষ হাইকোর্টের ■ ঢাকা মেডিকেলে দু'পক্ষের ব্যাপক সংঘর্ষ, আহত ২০ ■ ফিলিস্তিনে ইসরাইলের রকেট হামলা ■ ঘুষ প্রদানকারীদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নিতে হবে ■ কাশ্মীরিদের ওপর অত্যাচার চালানো হচ্ছে ■ ব্যারিস্টার মওদুদের জন্য দেশটা পিছিয়ে গেছে ■ এবারের ঈদযাত্রায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২২৪ ■ শিগগিরই রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু ■  বাস-অটোরিকশার সংঘর্ষে নিহত ৭
বন্ধ করে দেয়া হচ্ছে জিপি-রবির চলমান সব প্যাকেজ
দেশসংবাদ, ঢাকা
Published : Friday, 9 August, 2019 at 10:07 AM

গ্রামীণফোন ও রবির বিদ্যমান ভয়েস ও ডাটা প্যাকেজের নবায়ন বন্ধ করতে যাচ্ছে বাংলাদেশে টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন। যেকোন নতুন প্যাকেজ অনুমোদন স্থগিতে সংস্থাটির সাম্প্রতিক পদক্ষেপ আরও সম্প্রসারিত করা হচ্ছে।

দেশের দুই বৃহৎ মোবাইল অপারেটরের কাছ থেকে ১৩ হাজার ৪৪৬ কোটি ৯৫ লাখ নিরীক্ষা দাবি আদায়ের উদ্যোগের অংশ হিসেবে নিয়ন্ত্রণ কমিশনটি এই পদক্ষেপটি নিয়েছে।

বুধবার বিটিআরসির এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা বলেন, অনুমোদন নবায়নের ক্ষেত্রে সিদ্ধান্ত নিতে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ে একটি প্রস্তাব পাঠিয়েছে টেলিকম নিয়ন্ত্রণ সংস্থা। মন্ত্রণালয় যখন সেটি অনুমোদন দেবে, কমিশন তখন সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করতে পারবে।

এ বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে দুই মোবাইল অপারেটরের কর্মকর্তারা বলেন, এসব উদ্যোগে গ্রাহকদের ভোগান্তি তীব্রতর হবে। এর আগে নিয়ন্ত্রক সংস্থা অনাপত্তি সনদ ইস্যু না করার প্রভাব পড়েছে গ্রাহকদের ওপর।

বর্তমানে প্রচারমূলক অফারগুলো বাদেই গ্রামীণফোনের ৪০টি ভয়েস, ডাটা প্যাকেজের অনুমোদন রয়েছে। আর রবি গ্রাহকদের জন্য রয়েছে ১০০টি প্যাকেজ ও অফার।

সাধারণত এক বছরের জন্য বিটিআরসি মোবাইল অপারেটরগুলোকে প্যাকেজের অফারের অনুমোদন দেয়। এরপর তারা সেই সব প্যাকেজ কমিশনের সঙ্গে সম্পর্ক রেখে একবছরের বেশিও চালাতে পারে।

চলমান প্যাকেজগুলোর নবায়ন বাদেও নিয়ন্ত্রণ সংস্থার দাবি করা অর্থ পরিশোধ না করায় টেলিকম আইন লঙ্ঘনের কারণে কেন তাদের লাইসেন্স বাতিল করা হবে না, তা জানতে জিপি ও রবিকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিতে টেলিকম মন্ত্রণালয়কে প্রস্তাব দিয়েছে বিটিআরসি।

চলতি বছর গ্রামীণফোনের কাছ থেকে নিরীক্ষা দাবি হিসেবে ১২ হাজার ৫৭৯ কোটি ৯৫ লাখ এবং রবির কাছ থেকে আটশ ৬৭ কোটি টাকা দাবি করছে বিটিআরসি।

কিন্তু নিয়ন্ত্রক সংস্থার দাবি ত্রুটিপূর্ণ আখ্যা দিয়ে অর্থ পরিশোধ থেকে বিরত রয়েছে এই দুই টেলিকম অপারেটর।

সাম্প্রতিক সংবাদ সম্মেলনে জিপি জানায়, নিরীক্ষা দাবির বিতর্ক সমাধানে তারা সালিসি আইন ২০০১ অনুসরণ করছে। যদিও টেলিকম নিয়ন্ত্রণ সংস্থা বিতর্কের সমাধানে ওই আইন অনুসরণের কথা অস্বীকার করেছে।

বিটিআরসির চেয়ারম্যান জহুরুল হক বিভিন্ন সময়ে বলেছেন, এই বিতর্ক নিরসনে টেলিকম আইনে সালিসি আইন মানার কোনো সুযোগ নেই।

দেশসংবাদ/এফএইচ/mmh

মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
সম্পাদক ও প্রকাশক
এফ. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. আবদুস সবুর মিঞা (অব.)
সম্পাদকীয় কার্যালয়
৮০/২ ভিআইপি রোড, কাকরাইল, ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ।।
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft