ঢাকা, বাংলাদেশ || বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯ || ২ কার্তিক ১৪২৬
শিরোনাম: ■ সন্ত্রাসীদের আত্মসমর্পণ করতে বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ■ বড় ভাইয়ের নির্দেশে আবরারকে ডেকে এনে মুখে কাপড় দিয়ে মারা হয় ■ সোহরাওয়ার্দীতে সমাবেশ ডেকেছে ঐক্যফ্রন্ট ■ ‘কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ■ ফের কাশ্মীরে গোলাগুলি, ৩ সন্ত্রাসী নিহত ■ জাপানে টাইফুন হাগিবিসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭৩ ■ বালিশকাণ্ডে গণপূর্তের ১৬ কর্মকর্তা বরখাস্ত ■ ফেনীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৩৭ মামলার আসামি নিহত ■ বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে ভারতের সাথে বাংলাদেশের ড্র ■ ডিসেম্বরে বহুল প্রত্যাশিত ই-পাসপোর্ট উদ্বোধন ■ সম্রাট মারা গেলে দায় নেবে কে? ■ আবরার হত্যাকাণ্ডে কূটনীতিকদের বিবৃতি ‘অহেতুক’
ঐতিহাসিক দৃষ্টিনন্দন সৈয়দপুরে চিনি মসজিদ
আব্দুর রশিদ শাহ, নীলফামারী
Published : Thursday, 3 October, 2019 at 8:26 PM

এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের মুষ্টি চালে প্রতিষ্ঠিত ১৫৬ বছরের পুরনো ঐতিহ্যবাহী ঐতিহাসিক দৃষ্টিনন্দন তিন গম্বুজ আর ৪৯টি মিনারের মসজিদটির নাম আজ নীলফামারী ছাপিয়ে ছড়িয়ে পড়েছে দেশ-বিদেশেও।

চুন সুরকি দিয়ে তৈরী মসজিদ ভবনের গায়ে সাটানো চিনা মাটি, মার্বেল পাথর আর মেঝের মরমর পাথর করেছে আরও আকর্ষনীয় মনকাড়া। প্রতি শুক্রবার দেশ বিদেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে ধর্মপাণ মুসলমানেরা এ মসজিদে আসেন নামাজ আদায় করতে। অনেকেই থেকেও যান দু’চার দিন।

ভিন্ন ধর্মালম্বীরাও ছুটে আসেন এ ঐতিহাসিক নিদর্শন এক নজর দেখতে। এরপরেও নেই ওজুখানা ও বাথরুম। সংস্কার আর তিনতলার সার্বিক উন্নয়ন কাজের ব্যয় মেটাতে সরকারের হস্তক্ষেপ চেয়েছেন পরিচালনা পর্ষদ।

বলছি নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরের ইসলামবাগ চিনি মসজিদের কথা। বৃটিশ আমলে এই এলাকায় ছিল না কোন মসজিদ। ১৮৬৩সালে এলাকার হাজী বকর আলী ও হাজী মুখখুর উদ্যোগে প্রথমে খড় দিয়ে তৈরী করা হয় মসজিদ।

এলাকাবাসীর দেয়া মুষ্টি চাল ও চাকুরীজীবিদের এক মাসের মাসিক বেতনের ১৩/১৪ টাকার পুজিতে টিনের ঘর থেকে নির্মান করা হয় পাকা ঘর।

মসজিদের প্রথম কাঠামো বৃটিশ, দ্বিতীয় কাঠামো পাকিস্তান আর তৃতীয় কাঠামো বাংলাদেশ আমলে নির্মিত। বুনিয়াদ ৩০ইঞ্চি, ২০ইঞ্চি ও ১৫ ইঞ্চির উপর তিনতলা ভবন।

প্রতিদিন ১০আনা মজুরীতে প্রথম কাঠামো নির্মান করেন হিন্দু মিস্ত্রি শুঙ্খ রায়। এতে ব্যয় হয় ৯হাজার ৯৯৯রুপিয়া ১০আনা। দৃষ্টিনন্দন নির্মান শৈলীর এ মসজিদে দরজা রয়েছে ১১টি, জানালা ৮টি। প্রধান ফটক ৩টি। সৈয়দপুর শহরের গোলাহাট সড়কে ইসলামবাগ মোড়ে এ মসজিদের অবস্থান।

উপদেষ্টা আবুল কাশেম, বললেন নান্দনিক এ মসজিদে দেশ বিদেশ থেকে মুসলিম ছাড়াও ভিন্ন ধর্মালম্বীরাও আসেন ইবাদত করতে আর দেখতে আসেন।  

সহ-সভাপতি, মসজিদ পরিচালনা পর্ষদ মো: সাবির আলী জানালেন,এলাকাবাসীর সাহায্য সহযোগিতা আর ঘাম ঝড়া অর্থে নির্মিত মসজিদটি এলাকার ঐতিহ্য আর গর্ব।

মসজিদ পচিালনা পর্ষদ সাধারন সম্পাদক, ফজলুর রহমান বলেন,এলাকাবাসীর আর্থিক সহায়তা আর মাত্র সাতটি দোকানের ভাড়া দিয়ে মসজিদের সার্বিক ব্যয়ভার বহন করা দু:সাধ্য হয়ে পড়ায় সরকারের সার্বিক সহয়তা কামণা করলেন।

সাহিদ রেজা বলেন,ঐতিহাসিক দৃষ্টিনন্দন মসজিদের ঈমামতি করতে পেরে আনন্দিত আর গর্বিত এই ঈমাম মসজিদর সংস্কার কাজে আর্থিক সহায়তা চেয়ে সকলের প্রতি আহ্বান করেন।

দেশসংবাদ/এসকে


আরও সংবাদ   বিষয়:  ঐতিহাসিক   দৃষ্টিনন্দন   



মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এম. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. আবদুস সবুর মিঞা (অব.)
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft