ঢাকা, বাংলাদেশ || বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২০ || ৭ ফাল্গুন ১৪২৬
শিরোনাম: ■ সুপ্রিমকোর্ট বারের ভোটের তারিখ ঘোষণা ■ খালেদা জিয়াকে নিয়ে প্রশ্নের জবাব দেয়ার সময় নেই ■ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত বাংলাদেশি জীবনমৃত্যুর সন্ধিক্ষণে ■ মাঝ আকাশে দুই বিমানের সংঘর্ষে নিহত ৪ ■ মানবতাবিরোধী অপরাধ মামলায় এক আসামির জামিন ■ খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি রোববার ■ চীনে মৃত্যু আতঙ্ক, প্রাণ গেল আরও ১৩২ জনের ■ অভিবাসীদের ৫ বছরের ফ্যামিলি ভিসা দেবে কাতার ■ চলতি বছরেই কার্যকর হচ্ছে জিপিএ-৪ ■ বার কাউন্সিলের এমসিকিউ পরীক্ষার রোল নম্বর প্রকাশ ■ ফের বাড়ল স্বর্ণের দাম ■ দেশে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী পাওয়া যায়নি
অপহরণের নয় দিন পর সেই কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার
আফরোজা বেগম, রংপুর
Published : Sunday, 19 January, 2020 at 7:33 PM

অপহরণের নয় দিন পর সেই কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার

অপহরণের নয় দিন পর সেই কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার

রংপুরে অপহরণের শিকার রাজধানীর আরবান হেলথ কেয়ারের অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ অফিসার তোশারফ হোসেন পপির লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

গত ১১ জানুয়ারি রংপুরের কামারপাড়া ঢাকা কোচ স্টান্ড থেকে তার পূর্ব পরিচিত পুলিশ কনস্টেবল রবিউল ইসলামের পাতানো ফাঁদে তিনি অপহৃত হন । এঘটনায় ওই পুলিশ কনস্টেবলসহ তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

রোববার (১৯ জানুয়ারি) দুপুরে আরপিএমপির কোতয়ালী থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রশিদ এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
অপহরণ ঘটনার নয় দিন পর লাশ উদ্ধার হলেও  গত শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) অভিযান চালিয়ে রংপুর পুলিশ ট্রেনিং সেন্টারে কর্মরত কনস্টেবল রবিউল ইসলাম তার দুলাভাই সাইফুল ইসলাম ও পপির কাজের ছেলে বিপুল চন্দ্র সরকারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এব্যাপারে ওসি আব্দুর রশিদ, গ্রেফতার পুলিশ কনস্টেবলের দেয়া তথ্য অনুযায়ী রোববার সকালে রংপুরের শ্যামপুর এলাকায় রবিউলের বড় বোন লাবণী আক্তারের বাড়ির পাশ থেকে অপহৃত তোশারফ হোসেন পপির লাশ উদ্ধার করা হয়। লাশটি ময়নাতদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠানোর প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।

এদিকে অপহৃত তোশারফ হোসেন পপির ছোট বোন সাজিয়া আফরিন ডলি জানান, তার বড় ভাই রাজধানীর এনায়েতগঞ্জ লেন হাজারিবাগের ব্যবসায়ী ও আরবান হেলথ কেয়ারের অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ অফিসার। তার বাসায় গৃহপরিচারিকার (কাজের মেয়ে) সন্ধানে রংপুরে পূর্ব পরিচিত পুলিশ কনস্টেবল রবিউল ইসলামের কাছে তিনি আসেন। গত ১১ জানুয়ারি কামারপাড়া ঢাকা কোচ স্টান্ডে পৌছালে সেখান থেকে পপি অপহৃত হন।

তিনি আরও জানান, অপহরনের পরপরই তার বড় ভাইয়ের মোবাইল ফোন বন্ধ হয়ে যায়। এসময় কনস্টেবল রবিউলের সাথে যোগাযোগ করেও কোনো সন্ধান না পাওয়ায় বৃহস্পতিবার (১৬ জানুয়ারি)  কোতয়ালী থানায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন সাজিয়া আফরিন।
অপহৃতের ছোট ভাই আসাদুজ্জামান বলেন, নয় দিন পর ভাইয়ের সন্ধান মিললেও তাকে জীবিত পাওয়া গেল না। শোকে পাথর হয়ে গেছেন তার স্ত্রী ও তিন কন্যা।

এসময় তার ভাইয়ের অপহরণ ও হত্যাকান্ডের ঘটনার সাথে জড়িতদের তিনি সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানান। শনিবার (১৮ জানুয়ারি) আদালতের মাধ্যমে গ্রেফতার আসামীদেরকে রংপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলেও নিশ্চিত করেছে কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রশিদ।

দেশসংবাদ/প্রতিনিধি/আইশি


আরও সংবাদ   বিষয়:  অপহরণ   নয় দিন   কর্মকর্তা   লাশ   উদ্ধার  



মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এম. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. (অব.) আবদুস সবুর মিঞা
এনামুল হক
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft