ঢাকা, বাংলাদেশ || শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ || ৯ আশ্বিন ১৪২৭
Desh Sangbad
শিরোনাম: ■ সাগরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত ■ পৃথিবীকে রক্ষায় ৫ প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর ■ বসুন্ধরা করোনা হাসপাতাল বন্ধের নির্দেশ ■ ৭ হাজার ৯৯৫ স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত ■ ২০২১ সালেই পদ্মাসেতুতে ট্রেন চলবে ■ মোদির কারণে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্কের অবনতি ■ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার ১৫ দিন পর এইচএসসি পরীক্ষা ■ কক্সবাজারের ৩৪ পুলিশ ইন্সপেক্টরকে একযোগে বদলি ■ সৌদি ভাল করেই জানে রোহিঙ্গারা মিয়ানমারের নাগরিক ■ বিস্ফোরণে হতাহতদের পৌনে ২ কোটি টাকা সহায়তা ■ ২৪ ঘণ্টায় আরো ২৮ জনের মুত্যু, আক্রান্ত ১৫৪০ ■ পদ্মা সেতুর নকশার ত্রুটি, একে অন্যকে দোষারোপ
ওসির লাঞ্ছনার শিকার সেই এএসআইকে প্রত্যাহার
মো: সাগর আকন, বরগুনা
Published : Monday, 10 August, 2020 at 3:13 PM
Zoom In Zoom Out Original Text

ওসির লাঞ্ছনার শিকার সেই এএসআইকে প্রত্যাহার

ওসির লাঞ্ছনার শিকার সেই এএসআইকে প্রত্যাহার

বরগুনার বামনায় শত শত মানুষের সামনে লাঞ্ছনার শিকার সেই এএসআইকে বামনা থানা থেকে সরিয়ে বরগুনা পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বরগুনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. মফিজুল ইসলাম।

এএসপি মফিজুল ইসলাম বলেন, ওই এএসআইকে অন্য স্থানে পদায়নের জন্য থানা থেকে সরিয়ে পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়েছে।

জানা গেছে, রোববার (৮ আগস্ট) রাত ১১টার দিকে ভুক্তভোগী ওই এএসআইকে বরগুনার পুলিশ লাইনে সংযুক্ত হওয়ার জন্য নির্দেশ প্রদান করেন পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। এর পরপরই পুলিশ লাইনে সংযুক্ত হওয়ার জন্য দাফতরিক কাজকর্ম থেকে শুরু করে নিজের ব্যাগ-বোস্কা গোছানোর প্রস্তুতি শুরু করেন তিনি।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী ওই সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) বলেন, ‘গতকাল রাতে পুলিশ লাইনে সংযুক্ত হওয়ার জন্য আমাকে আমার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা নির্দেশ দিয়েছেন। এজন্য আমি পুলিশ লাইনে সংযুক্ত হওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছি। তবে কেন বা কী কারণে আমাকে পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়েছে তা আমি এখনও অবগত নই।’

এ বিষয়ে বরগুনা পুলিশ লাইনের রেসিডেন্সিয়াল ইনচার্জ (আরআই) মো. মোজাম্মেল হক বলেন, বামনার অনাকাঙ্ক্ষিত সেই ঘটনায় ভুক্তভোগী ওই এএসআইকে বরগুনার পুলিশ লাইনে সংযুক্ত হওয়ার জন্য বলা হয়েছে। তবে কেন বা কী কারণে তাকে পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়েছে তা আমি জানি না।

এ বিষয়ে বরগুনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. মফিজুল ইসলাম বলেন, আমরা ভুক্তভোগী ওই এএসআইকে একটি সুন্দর পরিবেশে কাজ করার সুযোগ করে দিতে চাই। এই মুহূর্তে তার বামনায় কাজ করার অনুকূল পরিবেশ নেই। তাই তাকে আমরা বামনা থানা থেকে সরিয়ে বরগুনা পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করেছি। খুব অল্প সময়ের মধ্যে তাকে আবারও অন্যত্র পদায়ন করা হবে। এই পদায়নে যতটুকু সময় লাগবে ততক্ষণ তিনি বরগুনা পুলিশ লাইনে সংযুক্ত থাকবেন।

উল্লেখ্য কক্সবাজারে পুলিশের গুলিতে মেজর (অব.) সিনহা মোহাম্মদ রাশেদের মৃত্যুর পর গ্রেফতার ও কারাবন্দি শাহেদুল ইসলাম সিফাতের মুক্তির দাবিতে শনিবার (৮ আগস্ট) মানববন্ধন পণ্ড করার সময় কর্তব্যরত ওই এএসআইকে চড় মারেন বরগুনার বামনা থানার ওসি মো. ইলিয়াস হোসেন।

চড় মারার ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে বামনা থানার ওসি মো. ইলিয়াস হোসেনের সমালোচনা করেন অসংখ্য মানুষ।

অপর দিকে পুলিশের গুলিতে মেজর (অব.) সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান নিহতের পর গ্রেফতার হন তার সঙ্গী সাহেদুল ইসলাম সিফাত। এরপর এ ঘটনায় পুলিশের করা তিনটি মামলার দু’টিতে আসামি করা হয় সিফাতকে। সোমবার সবগুলো মামলাতেই সিফাতের জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত।

এছাড়া দুটি মামলারই তদন্ত কর্মকর্তা পরিবর্তন করে র‌্যাবের কাছে তদন্তভার হস্তান্তর করা হয়েছে। সিনিয়র আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. গোলাম মোস্তফা এসব বিষয় নিশ্চিত করেছেন।

অ্যাডভোকেট মো. মোস্তফা জানান, সিফাতের নামে টেকনাফ থানায় মাদক ও হত্যা মামলা দায়ের করে পুলিশ। সোমবার বেলা সোয়া ১১টার দিকে টেকনাফ উপজেলা জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তামান্না ফারহার আদালত-৩ এ দুটি মামলায় জামিন পান সিফাত। এ সময় বিচারক দুটি মামলারই তদন্ত কর্মকর্তা পরিবর্তন করে র‌্যাবকে এর তদন্তভার দেন।

দেশসংবাদ/প্রতিনিধি/এনকে


আরও সংবাদ   বিষয়:  বরগুনা   বামনা   লাঞ্ছনা   এএসআই   প্রত্যাহার   পুলিশ সুপার মো. মফিজুল ইসলাম  




আপনার মতামত দিন
আরো খবর
করোনা আপডেট
বসুন্ধরা করোনা হাসপাতাল বন্ধের নির্দেশ
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এফ. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. (অব.) আবদুস সবুর মিঞা
এনামুল হক ভূঁইয়া
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : এম. এ হান্নান
যুগ্ম-সম্পাদক : মোহাম্মদ রুবাইয়াত আনোয়ার
যোগাযোগ
টেলিফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
সেলফোন : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft
logo
up