ঢাকা, বাংলাদেশ || সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০ || ১১ কার্তিক ১৪২৭
Desh Sangbad
শিরোনাম: ■ ইরফানের খাটের জাজিমের নিচে অস্ত্র, ঘরে ছিলো মদ-বিয়ার ■ ২৪ ঘণ্টায় ১৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৪৩৬ ■ অবশেষে হাজী সেলিমের ছেলে গ্রেফতার ■ বিএনপি গণমাধ্যমে যতটা গর্জে, রাজপথে ততটা বর্ষে না ■ যে কোন সময় গ্রেফতার হাজী সেলিমের ছেলে এরফান ■ মৃত্যু ছাড়াল সাড়ে ১১ লাখ ■ রিফাত হত্যার আরো ১৪ আসামির রায় মঙ্গলবার ■ করোনা নিয়ন্ত্রণে জরুরি অবস্থা জারি স্পেনে ■ অনশন ভাঙলেন রায়হানের মা ■ স্কুল-কলেজে সাপ্তাহিক ছুটি দুই দিন চূড়ান্ত ■ ক্যারমের আড়ালে ক্যাসিনো, আটক ২১ ■ ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড, চূড়ান্ত অনুমোদন
বিএনপিকে ষড়যন্ত্রের পথ পরিহার করতে হবে
দেশসংবাদ ডেস্ক
Published : Friday, 25 September, 2020 at 11:06 PM
Zoom In Zoom Out Original Text

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ

আওয়ামী লীগকে রাজনৈতিকভাবে মোকাবিলা করতে ব্যর্থ হয়ে বিএনপি ক্রমাগতভাবে ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তিনি বলেন, ‘পাকিস্তানি গোয়েন্দা ও গোয়েন্দা সংস্থার সঙ্গে বিএনপির যে দহরম-মহরম, সেটা বহু পুরনো। এর প্রমাণ হচ্ছে পাকিস্তানি গোয়েন্দাদের সঙ্গে মধ্যপ্রাচ্যের বৈঠক, যা প্রচণ্ড নিন্দনীয়।

শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সকালে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। মোহাম্মদ আবদুল খালেক ইঞ্জিনিয়ার, দৈনিক আজাদী এবং গণতন্ত্র’ শিরোনামে দৈনিক আজাদী কর্তৃপক্ষ এই সেমিনারের আয়োজন করে।

হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি অতীতে ষড়যন্ত্রের পথ অবলম্বন করে যে এগুতে পারেনি তারা নিশ্চয়ই অনুধাবন করতে সক্ষম। না হলে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে মানুষ পরপর রায় দিয়ে তিনবার রাষ্ট্র ক্ষমতায় বসাতো না। তাই আমি বিএনপিকে অনুরোধ জানাবো, ষড়যন্ত্রের পথ পরিহার করে মানুষের পাশে দাঁড়ান। এই ষড়যন্ত্র করে কোনও লাভ হবে না। আপনারা জানেন, ১৯৯১ সালের নির্বাচনের আগে পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থার পক্ষ থেকে বিএনপিকে পাঁচ কোটি টাকা দেওয়া হয়েছিল। এটি পাকিস্তানের গোয়েন্দা সংস্থার সাবেক প্রধান আদালতে জবানবন্দিতে বলেছেন। সুতরাং তারা দেশকে অস্থিতিশীল করার জন্য নানা ষড়যন্ত্র করছে। নির্বাচনের আরও অনেক দেরি আছে। নির্বাচনের বাকি আরও সাড়ে তিন বছর।

তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সমালোচনাকে সমাদৃত করার সংস্কৃতি লালন করেন। বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা ও আমাদের দল আওয়ামী লীগ মনে করে, সমালোচনা পথচলাকে শানিত করে। সমালোচনা কাজকে পরিশুদ্ধ করার ক্ষেত্রে সহায়তা করে। সেজন্য সংবাদপত্রের স্বাধীনতা, সংবাদপত্রের বিকাশের নীতি নিয়ে আমাদের সরকার কাজ করছে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা যখন ২০০৯ সালে সরকার গঠন করি তখন বাংলাদেশে সংবাদপত্রের সংখ্যা ছিল সাড়ে ৪শ’। এখন বাংলাদেশে দৈনিক সংবাদপত্র সাড়ে ১২শ’। তখন অনলাইন পত্রিকা ছিল হাতেগোনা কয়েকটি। এখন কয়েক হাজার অনলাইন পত্রিকা নিবন্ধনের জন্য আবেদন করেছে। প্রাইভেট টেলিভিশনের যাত্রা শুরু হয়েছিল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে ১৯৯৬ সালে তিনি প্রথম যখন দেশ পরিচালনার দায়িত্ব পান। ২০০৯ সালে আমরা যখন সরকার গঠন করি তখন প্রাইভেট টেলিভিশন ছিল ১০টা। এখন ৩০টি প্রাইভেট টেলিভিশন সম্প্রচারে আছে, ৪৫টি প্রাইভেট টেলিভিশনের জন্য লাইসেন্স দেওয়া আছে। এর বাইরে চারটি সরকারি টেলিভিশন চ্যানেল চালু আছে।

তিনি আরও বলেন, “বাংলাদেশের সংবাদপত্র যে ধরনের স্বাধীনতা ভোগ করে, অনেক উন্নত দেশেও কিন্তু সংবাদপত্রের এমন স্বাধীনতা নাই। ইউকে-তে ১৬৭ বছরের পুরনো পত্রিকা ছিল ‘নিউজ অব দ্য ওয়ার্ল্ড’। সেটি পৃথিবীর বহুল প্রচারিত ইংরেজি দৈনিক পত্রিকা ছিল একসময়। সেই পত্রিকা বন্ধ হয়ে গেছে। একটি ভুল সংবাদ পরিবেশনের কারণে মামলা হয়েছিল। মামলার পর তাদের ওপর বিরাট জরিমানা করেছে আদালত। সেই জরিমানা দিতে না পেরে  কোম্পানি পত্রিকা বন্ধ করে দিয়েছে। একজন এমপি’র বিরুদ্ধে ভুল বা অসত্য সংবাদ পরিবেশনের কারণে বিবিসি’র পুরো টিমকে পদত্যাগ করতে হয়েছে। ইউকে এবং কন্টিনেন্টাল ইউরোপে হরহামেশা ভুল এবং অসত্য সংবাদ পরিবেশনের কারণে পত্রিকা এবং গণমাধ্যমকে জরিমানা দিতে হয়। আমাদের দেশে সেটি কখনও হয়নি। সংবাদপত্র এ সমস্ত কারণে বন্ধ হয়নি। সেজন্য বলছি অনেক উন্নত দেশের তুলনায় বাংলাদেশের সংবাদমাধ্যম অনেক বেশি স্বাধীনতা ভোগ করে।

স্বাধীন সংবাদপত্র পাঠক সমিতির সভাপতি এসএম জামাল উদ্দিনের সভাপতিত্বে সেমিনারে উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন সাবেক সিটি মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক আনোয়ারুল আজিম আরিফ, দৈনিক আজাদী সম্পাদক লায়ন এম এ মালেক, রাউজান উপজেলা চেয়ারম্যান এহসানুল হায়দার বাবুল, মুক্তিযোদ্ধা জাহাঙ্গীর আলম সিইনসি প্রমুখ।

দেশসংবাদ/জেএন/এসআই


আরও সংবাদ   বিষয়:  চট্টগ্রাম   তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ   আওয়ামী লীগ  




আপনার মতামত দিন
আরো খবর
করোনা আপডেট
২৪ ঘণ্টায় ১৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৪৩৬
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এফ. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. (অব.) আবদুস সবুর মিঞা
এনামুল হক ভূঁইয়া
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : এম. এ হান্নান
যুগ্ম-সম্পাদক : মোহাম্মদ রুবাইয়াত আনোয়ার
যোগাযোগ
টেলিফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
সেলফোন : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft
logo
up