ঢাকা, বাংলাদেশ || বুধবার, ১৫ জুলাই ২০২০ || ৩০ আষাঢ় ১৪২৭
Desh Sangbad
শিরোনাম: ■ সিটি নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড প্রস্তুত করার নির্দেশ ■ ফখরুলকে যে প্রশ্ন করলেন হানিফ ■ বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসে হামলা ■ তওবা করে নতুন বছর শুরু করি ■ নববর্ষে দেশবাসীকে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা ■ অবৈধদের ফেরত না পাঠানোর লিখিত আশ্বাস চায় বাংলাদেশ ■ ২০১৯ সালে কর্মক্ষেত্রে নিহত ৯৪৫ জন শ্রমিক ■ হাইকোর্টে আইনজীবী হতে এবার এমসিকিউ পরীক্ষা ■ আন্তর্জাতিক কলরেট ৬৫ শতাংশ কমাতে যাচ্ছে বিটিআরসি ■ ভারতের নয়া সেনাপ্রধান মনোজ মুকুন্দ নারাভানে ■ পররাষ্ট্র সচিব হলেন মাসুদ বিন মোমেন ■ বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে ঢাকায় আসছেন ম্যারাডোনা
ডেঙ্গুর যন্ত্রণা কেউ না বুঝলেও আমি বুঝি
দেশসংবাদ, ঢাকা :
Published : Thursday, 25 July, 2019 at 7:28 PM, Update: 25.07.2019 7:59:47 PM
Zoom In Zoom Out Original Text

ডেঙ্গুর যন্ত্রণা কেউ না বুঝলেও আমি বুঝি

ডেঙ্গুর যন্ত্রণা কেউ না বুঝলেও আমি বুঝি

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, গত ১৩ জুন প্রস্তাবিত বাজেট উত্থাপন করি। কিন্তু, সেদিনটি ছিল আমার জীবনের চরম কষ্টের দিন। কারণ, এর তিন দিন আগে অর্থাৎ ১০ জুন ডেঙ্গু জ্বরে ভয়ানকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ি ও হাসপাতালে ভর্তি হই। ডেঙ্গুর যন্ত্রণা কী, আমি বুঝি। আল্লাহ যেন আর কারও ডেঙ্গু না দেয়। বৃহস্পতিবার (২৫ জুলাই) রাজধানীর শেরে বাংলা নগরে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) দু’দিনব্যাপী ‘গুড প্রজেক্ট ইমপ্লেমেন্টেশন ফোরাম’র সমাপনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

ডেঙ্গু জ্বরের তিক্ত অভিজ্ঞতা বর্ণনা দিয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, এর ভয়াবহতা আমি বুঝি। এ যন্ত্রণাও বুঝি। চিকুনগুনিয়ার পরেই আমি ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছি। এ অসুস্থতা নিয়েই গত ১৩ জুন সংসদে আসি। আমার বিশ্বাস ছিল, আমি প্রস্তাবিত বাজেট উত্থাপন করতে পারবো। কিন্তু, যা ভেবেছিলাম, বাস্তবতা ছিল সম্পূর্ণ ভিন্ন। অধিবেশন শুরুর আগে যখন সংসদে প্রবেশ করি, তখন থেকে পরবর্তী সাত-আট মিনিট আমি সম্পূর্ণভাবে ‘ব্ল্যাংক’ ছিলাম।

তিনি বলেন, আমার কোনো কিছুই মনে পড়ে না। কোনো রকমে গিয়ে আমার আসনে বসলাম। তখন কেবল মনে হচ্ছিল, প্রবল এক ভূমিকম্প পৃথিবীতে আঘাত হেনেছে। সে ভূমিকম্পের কারণেই যেন ক্ষণে ক্ষণে আমার কম্পন হচ্ছিল। মনে হচ্ছিল, আমি সিট থেকে পড়ে যাচ্ছি। তখন মনে মনে দোয়া পড়তে শুরু করলাম। বাজেট প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, চলতি বাজেট ৫ লাখ ২৩ হাজার ১৯০ কোটি টাকার। ২০৩৪ সালে এর আকার হবে ১ ট্রিলিয়ন ডলার (১০০ কোটি সমান এক বিলিয়ন ও এক হাজার বিলিয়নে এক ট্রিলিয়ন)।

মুস্তফা কামাল বলেন, বাজেটের পাশাপাশি দেশে অর্থনীতির আকার বাড়ছে। আমার কথার কোনো বিচ্যুতি হয় না। গত ১০ বছরে অর্থনীতি নিয়ে যা বলেছি, তাই হয়েছে। ২০৩০ সালে বাংলাদেশ ৩২তম অর্থনীতির দেশ হবে। আমরা বিনিয়োগ করে যাচ্ছি, ফল এখনও পাইনি, তবে খুব শিগগিরই পাবো।

দেশের সার্বিক উন্নয়নচিত্র তু্লে ধরে অর্থমন্ত্রী বলেন, আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে বিশ্ব অর্থনীতির প্রবৃদ্ধিতে প্রভাবশালী ২০ দেশের তালিকায় আসছে বাংলাদেশ। ২০২৪ সালের মধ্যে বিশ্ব অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে যেসব দেশ গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে, তার মধ্যে বাংলাদেশ থাকবে। ওই সময় বৈশ্বিক জিডিপির প্রবৃদ্ধিতে অবদান রাখবে, এমন শীর্ষ ২০ দেশের তালিকায় ঢুকবে বাংলাদেশ। তিনি বলেন, সম্প্রতি আইএমএফ বৈশ্বিক অর্থনীতির যে প্রক্ষেপণ প্রকাশ করেছে, সে তথ্যের ভিত্তিতে ব্লুমবার্গ এ বিশ্লেষণ করেছে।

ব্লুমবার্গের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০২৪ সাল পর্যন্ত বৈশ্বিক জিডিপি প্রবৃদ্ধিতে সবচেয়ে বেশি ভূমিকা রাখবে চীন। চীনের অবদান থাকবে ২৮ শতাংশ। এরপরই রয়েছে ভারত।
বাংলাদেশের উন্নয়নে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) অবদান তুলে ধরে মন্ত্রী বলেন, স্বাধীনতার পর থেকে এডিবি দেশের নানা উন্নয়নে ২৫ বিলিয়ন ডলার অর্থায়ন করেছে, আরও ১০ বিলিয়ন ডলার পাইপলাইনে আছে।

মুস্তফা কামাল আরও বলেন, অভিজ্ঞতা অর্জনের জন্য পিডি (প্রকল্প পরিচালক) ও ডিপিডিদের (উপ-প্রকল্প পরিচালক) থাইল্যান্ড, ভিয়েতনাম, ফিলিপাইন ও সিঙ্গাপুরে পাঠানো হবে।

এসময় এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ, অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) সচিব মনোয়ার আহমেদ, ইআরডির অতিরিক্ত সচিব ফরিদা নাসরিন উপস্থিত ছিলেন। দু’দিনের এ ফোরামে ভারত, ভুটান, নেপাল, শ্রীলঙ্কা ও ইন্দোনেশিয়ার প্রকল্প বাস্তবায়নের অভিজ্ঞতা তুলে ধরা হয়।

দেশসংবাদ/এসআই


আরও সংবাদ   বিষয়:  অর্থমন্ত্রী   ডেঙ্গু  




আপনার মতামত দিন
আরো খবর
করোনা আপডেট
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
ফাতেমা হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. (অব.) আবদুস সবুর মিঞা
এনামুল হক ভূঁইয়া
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft
logo
up