ঢাকা, বাংলাদেশ || বৃহস্পতিবার, ৪ জুন ২০২০ || ২০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
Desh Sangbad
শিরোনাম: ■ সিটি নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড প্রস্তুত করার নির্দেশ ■ ফখরুলকে যে প্রশ্ন করলেন হানিফ ■ বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসে হামলা ■ তওবা করে নতুন বছর শুরু করি ■ নববর্ষে দেশবাসীকে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা ■ অবৈধদের ফেরত না পাঠানোর লিখিত আশ্বাস চায় বাংলাদেশ ■ ২০১৯ সালে কর্মক্ষেত্রে নিহত ৯৪৫ জন শ্রমিক ■ হাইকোর্টে আইনজীবী হতে এবার এমসিকিউ পরীক্ষা ■ আন্তর্জাতিক কলরেট ৬৫ শতাংশ কমাতে যাচ্ছে বিটিআরসি ■ ভারতের নয়া সেনাপ্রধান মনোজ মুকুন্দ নারাভানে ■ পররাষ্ট্র সচিব হলেন মাসুদ বিন মোমেন ■ বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে ঢাকায় আসছেন ম্যারাডোনা
মনোনয়ন নিয়ে বিকালে মুখ খুলবেন খোকন
দেশসংবাদ ডেস্ক
Published : Monday, 30 December, 2019 at 3:08 PM
Zoom In Zoom Out Original Text

মেয়র সাঈদ খোকন

মেয়র সাঈদ খোকন

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপস। মনোনয়ন চেয়েও পাননি বর্তমান মেয়র সাঈদ খোকন।

মনোনয়নবঞ্চনা নিয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় মুখ খোলেননি মেয়র খোকন। বাসা থেকেও বের হননি। অবস্থান করছেন বনানীর বাসায়। ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের কার্যালয় নগর ভবনেও যাননি তিনি। তবে আজ এ নিয়ে কথা বলার কথা জানিয়েছেন খোকন।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা উত্তম কুমার রায় জানিয়েছেন, ডিএসসিসি মেয়র সাঈদ খোকন বিকাল ৩টায় নগরভবনে গণমাধ্যমের কর্মীদের কাছে নিজের মন্তব্য জানাবেন।

গতকাল আওয়ামী লীগ দুই সিটিতে দলীয় প্রার্থীর নাম ঘোষণা করার পর থেকে বঞ্চিত খোকনের প্রতিক্রিয়া জানতে বারবার ফোন করা হয় বিভিন্ন মিডিয়ার পক্ষ থেকে। এক দুজনের ফোন রিসিভ করলেও নো কমেন্টস বলে কেটে দেন। অন্যদের ফোনই ধরেননি।

ডিএসসিসির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, কর্মদিবসে রোজ বেলা ১১টার পর পরই নগরভবনে যেতেন মেয়র সাঈদ খোকন। কিন্তু রোববার দলীয় প্রার্থী ঘোষণায় নিজের নাম না দেখে অনেকটা হতবিহ্বল খোকন। নগরভবনে যাননি।

মেয়র খোকনের ঘনিষ্ঠরা জানান, সাঈদ খোকন আবারও মনোনয়ন পাবেন এমন আত্মবিশ্বাসী ছিলেন তার কর্মী-সমর্থকরা। গত কয়েক দিন তার বাড়িতে দলীয় নেতাকর্মী ও কাউন্সিলরদেরও ভিড় ছিল। কিন্তু খোকন নির্বাচনে মনোনয়ন না পেলে পাল্টে যায় চিত্র। রোববার তাকে সমবেদনা জানাতে ডিএসসিসির কর্মকর্তা-কর্মচারী, কাউন্সিলর, ঠিকাদার—কেউই যাননি। তার মনের অবস্থা ভালো নেই এ কারণেই হয়তো অনেকে সেখানে যাননি।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালে সর্বশেষ ডিএসসিসি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। ওই নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে প্রথমবারের মতো মনোনয়ন পান অবিভক্ত ঢাকার সাবেক মেয়র মোহাম্মদ হানিফের ছেলে খোকন। নির্বাচনে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসকে বিপুল ভোটে হারিয়ে মেয়র নির্বাচিত হন খোকন। যদিও ভোটের দিন নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ায় বিএনপি।

২০১৫ সালের ২৮ এপ্রিলের ওই নির্বাচনে ৫ লাখ ৩৫ হাজার ২৯৬ ভোট পেয়ে মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলেন সাঈদ খোকন। ওই বছর ৬ মে মেয়র হিসেবে শপথ নেন তিনি।

আগামী বছর ১৭ মে পর্যন্ত দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়রের দায়িত্বে আছেন সাঈদ খোকন। ২২ ডিসেম্বর নির্বাচন কমিশন (ইসি) এই নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর ২৫ ডিসেম্বর থেকে মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু করে আওয়ামী লীগ। প্রথম দিন মনোনয়নপত্র সংগ্রহ না করলেও দ্বিতীয় দিন দলীয় ফরম সংগ্রহ করেন সাঈদ খোকন। সেদিন তিনি মনোনয়নপত্র হাতে নিয়ে অঝোরে কাঁদেন। বর্তমান সময়কে ‘কঠিন সময়’ অভিহিত করে সবাইকে তার পাশে থাকার আহ্বান জানান খোকন।

ওই দিন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দেখা করেন মেয়র খোকন। পরে গণমাধ্যমকে বলেন, দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার বিষয়ে তিনি শতভাগ আশাবাদী। মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার সময় বলেন, দলীয় প্রধান আমাকেই মনোনয়ন দেবেন। তিনিই আমার অভিভাবক।

দেশসংবাদ/জেআর/এনকে


আরও সংবাদ   বিষয়:  ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন   নির্বাচন   আওয়ামী লীগ   মেয়র সাঈদ খোকন  




আপনার মতামত দিন
আরো খবর
করোনা আপডেট
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এম. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. (অব.) আবদুস সবুর মিঞা
এনামুল হক ভূঁইয়া
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft
logo
up