ঢাকা, বাংলাদেশ || শনিবার, ৪ এপ্রিল ২০২০ || ২১ চৈত্র ১৪২৬
শিরোনাম: ■  একদিনে করোনায় আক্রান্ত হলেন একলাখ মানুষ ■ করোনা নিয়ে কাল প্রধানমন্ত্রীর কর্মপরিকল্পনা ঘোষণা ■ ৮৭ হাজার কোটি টাকার প্রণোদনার প্রস্তাব বিএনপির ■ রোববার খুলছে সব পোশাক কারখানা ■ ১১ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ থাকবে গণপরিবহন ■ নৌযানে আইসোলেশন সেন্টার করা হচ্ছে ■ দেশে করোনায় আরো দু’জনের মৃত্যু, আক্রান্ত বেড়ে ৭০ ■ যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু ৭ হাজার, আক্রান্ত ৩ লাখ ■ করোনায় আক্রান্ত র‌্যাব সদস্য, টেকনাফে ১৫ বাড়ি-দোকান লকডাউন ■ বিশ্বে মৃতের সংখ্যা ৫৯ হাজার অতিক্রম ■ করোনার ভয়াল থাবায় লন্ডভন্ড যুক্তরাষ্ট্র ■ বিশ্বে প্রতি মিনিটে ৪ জনের মৃত্যু
বৃষ্টির মতো খাবার ঝরছে অস্ট্রেলিয়ায়
দেশসংবাদ ডেস্ক
Published : Monday, 13 January, 2020 at 9:33 AM

ছবি-সংগৃহীত

ছবি-সংগৃহীত

দাবানল অস্ট্রেলিয়ার জন্য একেবারেই নতুন কোনো বিষয় নয়। তবে গত সেপ্টেম্বর থেকে অস্ট্রেলিয়া যে দাবানলে পুড়ছে, এই ভয়াবহতা অস্ট্রেলিয়ার জন্য নতুন। এই আগুনে কত যে প্রাণী মারা গেছে তার সঠিক সংখ্যা জানা না গেলেও সে সংখ্যা যে কয়েক কোটি পর্যন্ত হয়ে যেতে পারে সে ইঙ্গিত ইতোমধ্যে পাওয়া গেছে।

কেবল আগুন থেকে বেঁচে যাওয়াটাই বনের প্রাণীদের জন্য যুদ্ধ শেষ হয়ে যাওয়া নয়। আগুন থেকে বাঁচার পর শুরু হয় তাদের খাবারের জন্য লড়াই। কারণ এমন অনেক তৃণভোজী প্রাণী আছে যাদের খাবারের পুরোটা পুড়েছে আগুনে। দেখা যাচ্ছে অনেক অংশে আগুন নেভার পর খাওয়ার কিছু পাচ্ছে না সেখানকার প্রাণীরা।

এরকম বিপদে থাকা প্রাণীদের মধ্যে অন্যতম হলো ওয়ালিবিজ (ছোট এক ধরনের ক্যাঙ্গারু)। দাবানল শুরুর আগে থেকেই এ প্রাণীদের সংখ্যা কমে আসছিল। আগুন লাগার পর সে পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে।

তাই তাদের বাঁচাতে দারুণ এক পদ্ধতি নিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। এ ধরনের প্রাণীগুলোর জন্য আকাশ থেকে বৃষ্টির মতো করে খাবার ফেলা হচ্ছে। খাবার বলতে মূলত বিভিন্ন ধরনের সবজি ফেলা হচ্ছে হেলিকপ্টার থেকে।

দাবানলে পুড়ে যাওয়া অঞ্চলগুলো আবার আগের ধারায় না ফেরা পর্যন্ত এভাবে খাবার সরবরাহ চালিয়ে যাওয়া হবে।

এরই মধ্যে দাবানলে অস্ট্রেলিয়ার বিভিন্ন রাজ্যের বিস্তীর্ণ অঞ্চল পুড়ে ছাই হয়েছে। মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৪ জনে। দাবানলের জন্য অস্ট্রেলিয়ার প্রচণ্ড দাবদাহকেই দায়ী করা হয়। এর সঙ্গে রয়েছে প্রচণ্ড খরা ও ঝড়ো বাতাসের তাণ্ডব। মনে করা হচ্ছে এ জন্যই এবার এত দীর্ঘ সময় ধরে দাবানল চলছে। এ ছাড়া দাবানলের অন্যতম একটা প্রধান কারণ হলো বজ্রপাত। বজ্রপাতের পর গাছে আগুন লেগে তা একসময় ভয়াবহ আকার ধারণ করে। ফলে বজ্রপাত কিভাবে কমানো যায় সেদিকে নজর দেয়ার কথা বলা হচ্ছে।

দেশসংবাদ/জেএন/এনকে


আরও সংবাদ   বিষয়:  দাবানল   অস্ট্রেলিয়া  



মতামত দিতে ক্লিক করুন
আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর >>
সর্বাধিক পঠিত
ফেসবুকে আমরা
English Version
More News...
সম্পাদক ও প্রকাশক
এম. হোসাইন
উপদেষ্টা সম্পাদক
ব্রি. জে. (অব.) আবদুস সবুর মিঞা
এনামুল হক ভূঁইয়া
যোগাযোগ
ফোন : ০২ ৪৮৩১১১০১-২
মোবা : ০১৭১৩ ৬০১৭২৯, ০১৮৪২ ৬০১৭২৯
ইমেইল : [email protected]
Developed & Maintenance by i2soft